তাজরীন ফ্যাশনের শ্রমিকদের ক্ষতিপূরণ আদায়ে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা জাতীয় মানবাধিকার সমিতির

প্রকাশিত: অক্টোবর ৩, ২০২০

আশুলিয়ার তাজরীন গার্মেন্টস মালিক দেলোয়ার হোসেনের শাস্তির পাশাপাশি সম্মানজনক ও উপযুক্ত ক্ষতিপূরণ দাবি পূরনে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেছে বাংলাদেশ জাতীয় মানবাধিকার সমিতি। শনিবার (৩ অক্টোবর) জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে আশুলিয়ার তাজরীন ফ্যাশন গার্মেন্টস মালিক দেলোয়ার হোসেনের শাস্তির পাশাপাশি সম্মানজনক ও উপযুক্ত ক্ষতিপূরণ দাবিতে অনুষ্ঠিত অবস্থান কর্মসূচীতে সংহতি প্রকাশ করে নেতৃবৃন্দ এ দাবী জানান। এসময় উপস্থিত ছিলেন জাতীয় মানবাধিকার সমিতির চেয়ারম্যান মো. মঞ্জুর হোসেন ঈসা, মহাসচিব এডভোকেট সাইফুল ইসলাম সেকুল, সাংগঠনিক সম্পাদক লায়ন আল আমিন, কুমিল্লা জেলা আহ্বায়ক পারভেজ হোসেন বাবু প্রমুখ।

মো. মঞ্জুর হোসেন ঈসা বলেন, রাষ্ট্রের ভূল নীতির ফলে ধনিক শ্রেনী লাভবান হলেও শ্রমিক শ্রেনী বাবার বঞ্চিত হয়। ২০১২ সালের ২৪ নভেম্বর আশুলিয়ার নিশ্চিন্তপুরে তাজরীন ফ্যাশন গার্মেন্টসে অগ্নিকাণ্ড ঘটে। আগুন লাগার ভবনের সিঁড়ি তালাবদ্ধ ছিল। শ্রমিকরা আগুন থেকে জীবন বাঁচাতে কারখানাটির ৫, ৪ ও ৩ তলা থেকে লাফিয়ে নিচে পড়তে বাধ্য হই। যার ফলে অনেকেই ক্ষতিগ্রস্থ হয়। ক্ষতিগ্রস্থ ব্যাক্তিরা পরিবার-পরিজন নিয়ে বর্তমানে দুর্বিসহ জীবন কাটাচ্ছে।

তিনি বলেন, ক্ষতিগ্রস্থদের সুচিকিৎসা, ক্ষতিপূরণ ও পুনর্বাসনে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ ছাড়া বিকল্প নাই। ক্রেতা সংস্থাসহ অনেকেই তখন সুচিকিৎসা, ক্ষতিপূরণ ও পুনর্বাসনের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। কিন্তু অত্যন্ত দুঃখের ব্যাপার, অগ্নিকাণ্ডের প্রায় চার বছর পর আমাদের দেয়া হয় সামান্য অনুদান, সেখানেও নিদারুণ বৈষম্য।