ভারতে আইসিইউতে করোনা রোগীকে যৌন নিপীড়ন চিকিৎসকের!

প্রকাশিত: মে ৫, ২০২০

ভারতে হাসপাতালের আইসিইউ ওয়ার্ডে ভর্তি ৪৪ বছর বয়সী পুরুষ করোনা রোগীকে যৌন নিপীড়ন করার অভিযোগ উঠেছে এক চিকিৎসকের বিরুদ্ধে।

শুক্রবার (০১ মে) ভারতের মুম্বাই সেন্ট্রাল এলাকার একটি বেসরকারি হাসপাতালের আইসিইউ ওয়ার্ডের ভিতরে এই ঘটনা ঘটে।

অভিযুক্ত ৩৪ বছরের ওই চিকিৎসকও পুরুষ। যৌন নিপীড়নের অভিযোগে ওই চিকিৎসকের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে।

ইন্ডিয়া টুডের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শুক্রবার মুম্বাই সেন্ট্রাল এলাকার একটি বেসরকারি হাসপাতালের আইসিইউ ওয়ার্ডের ভিতরে এই ঘটনা ঘটে। অভিযুক্ত ডাক্তার কোয়ারেন্টিনে থাকায় গ্রেপ্তারের করা হয়নি। কোয়ারেন্টিন শেষ হলেই গ্রেপ্তার করা হবে। অভিযুক্ত ডাক্তারের নাম প্রকাশ করা হয়নি।

খবরে বলা হয়েছে, অভিযুক্ত ডাক্তার ঘটনার মাত্র একদিন আগে হাসপাতালটিতে যোগদান করেছেন। তার বিরুদ্ধে রোগীকে অনুপযুক্তভাবে স্পর্শ করার অভিযোগ আনা হয়েছে। রোগী এই ঘটনাটি সিনিয়র ডাক্তারকে জানানোর সাথে সাথে তারা মুম্বাই পুলিশকে খবর দেয়।

পুলিশ জানিয়েছে যে, কভিড-১৯ রোগীর সংস্পর্শে আসায় তারা অভিযুক্তকে ডাক্তারকে গ্রেপ্তার করেনি। পরিবর্তে তাকে নিজ বাড়িতে কোয়ারেন্টিন করা হয়েছে। ১৪ দিনের কোয়ারেন্টিন শেষ হলেই গ্রেপ্তার করা হবে। অভিযুক্ত ডাক্তারের বিরুদ্ধে ভারতীয় দন্ডবিধি ৩৭৭ (অপ্রাকৃত অপরাধ), ২৬৯ (কাজে অবহেলা) এবং ২৭০ (সংক্রামক রোগ ছড়িয়ে দিয়ে জীবন বিপন্ন করা) ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

এই ঘটনার বিষয়ে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বলেছে, ‘অভিযুক্ত ডাক্তার তার প্রথম দিন ডিউটিতে ছিলেন। আগের দিন যোগ দিয়েছিলেন। অসদাচরণের তথ্য প্রাপ্তির পর প্রোটোকল অনুসারে তাৎক্ষনাত পুলিশকে খবর দেয় হয় এবং ওই চিকিৎসককে চাকরি থেকে অব্যহতি দেওয়া হয়েছে।’

Bangladeshtoday