চুয়াডাঙ্গায় আরও ১৫ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৪০

প্রকাশিত: জুলাই ৬, ২০২১

চুয়াডাঙ্গায় করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ভয়াবহ রূপ নিয়েছে। শনাক্তের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যা। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ও উপসর্গ নিয়ে ১৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। সোমবার সকাল থেকে মঙ্গলবার সকাল পর্যন্ত তাদের মৃত্যু হয়। এ নিয়ে জেলায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১০১ জনে। এ দিন ৩৯৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ১৪০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৩ হাজার ৯৪৫ জনে।

মঙ্গলবার (০৬ জুলাই) সকালে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. এএসএম ফাতেহ আকরাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় চুয়াডাঙ্গায় করোনা আক্রান্ত হয়ে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে দুজন সদর হাসপাতালের রেডজোনে এবং জেলার বাইরে একজনের মৃত্যু হয়েছে। উপসর্গ নিয়ে মারা যাওয়া তিনজন চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের হলুদ জোনে চিকিৎসাধীন ছিলেন।

এ ছাড়া জেলার বিভিন্ন স্থানে নিজ বাড়িতে মারা গেছেন আরও ৯ জন। সোমবার রাতে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের কাছে ৩৯৩ জনের নমুনা পরীক্ষার ফলাফল আসে। এর মধ্যে ১৪০ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। ১৪০ জনের মধ্যে চুয়াডাঙ্গা সদরের ৪৪ জন, আলমডাঙ্গার ২১ জন, দামুড়হুদায় ১৮ জন এবং জীবননগরে ৫৭ জন রয়েছেন।

করোনায় মারা যাওয়া একজন সদর উপজেলা এবং দুজন দামুড়হুদার বাসিন্দা বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য বিভাগ। উপসর্গ নিয়ে মারা যাওয়া তিনজন চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের হলুদ জোনে চিকিৎসাধীন ছিলেন। বাকি ৯ জন জেলার বিভিন্ন স্থানে নিজ বাড়িতে উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন বলে স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে। এ পর্যন্ত জেলায় মৃত্যু হয়েছে ১০১ জনের ও জেলার বাইরে ১৬ জনের।