ভারতে ৩১ মার্চ পর্যন্ত আন্তর্জাতিক ফ্লাইট স্থগিত

প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০২১

করোনা সংক্রমণের উর্ধ্বগতির প্রেক্ষিতে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট স্থগিতাদেশের মেয়াদ বাড়িয়েছে ভারতের সরকার। দেশটির কেন্দ্রীয় বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ ডিরেক্টর জেনারেল অব সিভিল এভিয়েশন (ডিজিসিএ) শুক্রবার এক বিবৃতিতে এই তথ্য জানিয়েছে।

তবে এই নিয়ম শুধু আন্তর্জাতিক যাত্রীবাহী বিমান পরিষেবার ক্ষেত্রেই কার্যকর হবে, পণ্যবাহী কার্গো বিমানের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য হবে না।

ডিজিসিএর শুক্রবারের বিবৃতিতে বলা হয়, ‘আন্তর্জাতিক বিমান চলাচলের ওপর নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ আগামী ৩১ মার্চ রাত ১১ টা ৫৯ মিনিট পর্যন্ত বৃদ্ধি করা হল। তবে পণ্যবাহী বিমানগুলোর পাশাপাশি যেসব বিমান এয়ার বাবল ও বন্দে ভারত মিশনের অন্তর্ভুক্ত, তাদের চলাচলে কোনও বাধা দেওয়া হবে না।’

করোনা সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর গত বছর মার্চ থেকে অভ্যন্তরীণ ও আন্তর্জাতিক ফ্লাইটে স্থগিতাদেশ দিয়েছিল ভারত। গত কয়েক মাসে লকডাউন ও করোনা বিধিনিষেধ শিথিল করে অর্থনীতির বিভিন্ন খাত খুলে দেওয়ার পাশাপাশি অভ্যন্তরীণ ফ্লাইটগুলোর ওপর স্থগিতাদেশ তুলে নিয়েছিল দেশটির কেন্দ্রীয় সরকার। তবে আন্তর্জাতিক ফ্লাইটগুলোর ওপর নিষেধাজ্ঞা বহাল ছিল।

এদিকে চলতি ফেব্রুয়ারি থেকে ভারতে ফের করোনা সংক্রমণের উর্ধ্বগতি দেখা দিয়েছে। ১৬ জানুয়ারি থেকে দেশটিতে গণটিকাদান কর্মসূচি শুরু হলেও মহারাষ্ট্র, কেরালাসহ পাঁচ রাজ্যে আচমকা লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে করোনা চিত্র।

ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দেওয়া পরিসংখ্যান বলছে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে ১৬ হাজার ৪৮৮ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। মৃত্যু হয়েছে ১১৩ জনের।

গত বছর জানুয়ারি থেকে বিশ্বজুড়ে শুরু হওয়া করোনা মহামারিতে আক্রান্ত ও মৃতের তালিকায় যুক্তরাষ্ট্র ও ব্রাজিলের পরই রয়েছে ভারত। ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্য অনুযায়ী. এ পর্যন্ত দেশটিতে করোনায় মোট আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ১ কোটি ১০ লক্ষ ৭৯ হাজার ৯৭৯, এবং এ রোগে এখন পর্যন্ত দেশটিতে মৃতের সংখ্যা ১ লাখ ৫৬ হাজার ৯৭০।